info@mohsinmallik.com

মোবাইল এসইও গাইডলাইন ২০২০

mobile site optimization

কেন মোবাইল এসইও করবেন?

মোবাইল এসইও হচ্ছে ঐ ধরনের কার্যাবলী যার মাধ্যমে সাইটকে মোবাইল ইউজার যেমন স্মার্টফোন, ট্যাবলেট ইউজারদের জন্য অপটিমাইজ করা হয়। এর মধ্যে সার্চ ইঞ্জিন স্পাইডারের জন্য সাইট রিসোর্সসমূহকে ভিসিট করার অনুমতি দেয়াও অন্তর্ভূক্ত।

ইউনাইটেড ষ্টেটস এ বর্তমানে প্রায় ৬৩% গুগল সার্চ মোবাইলের মাধ্যমে করা হয়। সুতরাং মোবাইল এসইওর গুরুত্ব বুঝতেই পারছেন। এই সংখ্যা উত্তোরত্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে এবং পাবে। 

mobile seo
Source: 99firms

গুগলের তথ্য অনুযায়ী ডেস্কটপ এর চেয়ে ২৭.৮ বিলিয়ন বেশী সার্চ করা হয়েছে মোবাইল এর মাধ্যমে। বুঝতেই পারছেন এটা কি পরিমান গুরুত্বপূর্ণ এবং যার কারনে গুগল এখন তার পুরো এলগরিদম এর ফোকাস মোবাইল সার্চ এর দিকে নিয়ে যাচ্ছে।

এস ই ও কি এখন শুধুই মোবাইল এস ই ও?

বলা যায় হ্যা। কারন মোবাইল সার্চ মার্কেটকে ডমিনেট করে গুগল। 

৯৫% মোবাইল সার্চ করা হয় গুগলের মাধ্যমে। সুতরাং স্বাভাবিকভাবেই তারা তাদের এলগরিদমকে মোবাইল ফার্ষ্ট এর মত একটি রুপ দিচ্ছে। 
গুগলের এই ব্লগ পোষ্ট অনুযায়ী তারা মোবাইল ফ্রেন্ডলি সাইট পেজগুলোকে ভালো র‍্যাংক দেয়। যে সকল সাইট মোবাইল ফ্রেন্ডলি নয়, সেগুলোকে তারা মোবাইল সার্চের জন্য পেনালাইজ করেছে অলরেডি।

গুগলের মোবাইল ফার্ষ্ট ইনডেক্স কি?

পূর্বে গুগল এর সার্চ ইনডেক্স মোবাইল সাইট এবং ডেক্সটপ সাইটের জন্য আলাদা আলাদা ছিলো। 

যেমন, একজন ব্যাক্তি যদি তার স্মার্টফোন থেকে যদি সার্চ করতো তাহলে তাকে মোবাইল অপটিমাইজড সাইটগুলোই দেখানো হতো। তেমনি ডেক্সটপ সার্চের জন্য ডেক্সটপ সাইট।

এখন গুগল মোবাইল অপটিমাইজড সাইটগুলোকেই আগে ইনডেক্স করে এবং আপনি যে ডিভাইস থেকেই সার্চ করুন না কেন, আপনাকে রেজাল্ট সেই মোবাইল ইনডেক্স থেকেই দেয়া হয়।

mobile first index

সাইটকে মোবাইল ফ্রেন্ডলি করতে কিভাবে ডিজাইন করা যায়?

এর মূলত কয়েকটি উপায় আছে। তবে সবচেয়ে সহজ এবং কার্যকর উপায় হচ্ছে রেসপন্সিভ ওয়েব ডিজাইন। গুগল নিজেও সাইটের রেসপন্সিভ ডিজাইন করার পরামর্শ দেয়, পড়ুন এই পোষ্টে

মোবাইল সার্চের জন্য কিভাবে অপটিমাইজ করবেন?

Mobile Friendly Test:

আপনার সাইটটি মোবাইল ফ্রেন্ডলি কি না, সেটা টেষ্ট করুন সর্বপ্রথম। https://search.google.com/test/mobile-friendly

Robot.txt ফাইলটি চেক করে দেখুনঃ

গুগলবটকে সাইটের সবকিছু ক্রল করতে দিন। হতে পারে কিছু জিনিস এখানে disallow করা আছে। সেগুলো দেখুন। একান্ত গোপনীয় না হলে allow করে দিন।

Popup না ব্যাবহার করাই ভালোঃ

কারন বেশীরভাগ ইউজার পপআপ পছন্দ করে না এবং অধিকাংশ ক্ষেত্রেই তারা বিরক্ত হয়। এটা সাইটের ইউজার এক্সপিরিয়েন্সের উপর নেগেটিভ প্রভাব ফেলে।

ইউজার এক্সপিরিয়েন্স অপটিমাইজেশনঃ

এখন এসইও মানে মেটা ট্যাগগুলো সেট করা নয় বরং এখন এসইওর সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে ইউজার ফ্রেন্ডলি অসাধারন সাইট তৈরী করা।

  • মোবাইল সাইট স্পিড টেষ্ট করুনঃ https://developers.google.com/speed/pagespeed/insights/ এটি গুগলের একটি ফ্রি টুল। এতে আপনার মোবাইল সাইটের কি কি পরিবর্তন প্রয়োজন সে সম্পর্কে সাজেশন দেয়া হবে।
  • সাইটের কনটেন্ট যেন সহজেই পড়া যায়ঃ কন্টেন্টকে বেশী জটিল বা হিজিবিজি করে সাইটে রাখবেন না। এটি করলে আপনার পেজের বাউন্স রেট বৃদ্ধি পাবে। আইডিয়াল কন্টেন্ট এর জন্য কিছু টিপস ফলো করতে পারেন যেমনঃ
  1. ১৪ পিক্সেল এর ফন্ট ব্যাবহার করুন (১৫ বা ১৬ ও ব্যবহার করতে পারেন)।
  2. ছোট ছোট প্যারাগ্রাফ ব্যবহার করুন।
  3. ৫০-৬০ অক্ষরের মধ্যে এক একটি লাইন রাখার চেষ্টা করুন।
  4. কালার কনট্রাষ্ট ঠিক রাখার চেষ্টা করুন। বিশেষ করে টেক্সট ও ইমেজ কনটেন্ট মধ্যে যেন ভিজিটররা সহজেই পার্থক্যটা বুঝতে পারে।
  • ভিডিও ও এনিমেটেড কনটেন্ট এর জন্য HTML5 ব্যবহার করুনঃ আপনি যদি কনটেন্টে ভিডিও এমবেড করেন অথবা আপনার সাইটে ফেন্সী এনিমেশন টাইপের কাজ রয়েছে? মনে রাখবেন মোবাইল ডিভাইসে ফ্ল্যাশ কাজ করে না। এজন্য আপনাকে অবশ্যই HTML 5 ব্যবহার করতে হবে।

Viewport content ট্যাগের ব্যাবহারঃ

Viewport ট্যাগটি একটি খুবই মজার ট্যাগ এবং একই সাথে সহজে ব্যবহারযোগ্য। সাইটে রেসপন্সিভ ডিজাইন ব্যবহার করে থাকলে এই ট্যাগটি ব্যবহার করতে ভুলবেন না। 

viewport tag

ইউজারের ডিভাইস অনুযায়ী পেজের সাইজ চেঞ্জ করতে সাহায্য করে এই ট্যাগটি।

Title এবং Description Optimization:

মোবাইল এসইওর জন্য টাইটেলের রুমটা একটু বড়। ডেস্কটপ সার্চের জন্য গুগল সর্বোচ্চ শো করে ৭০ ক্যারেক্টার, সেখানে মোবাইল সার্চের জন্য শো করে ৭৮ ক্যারেক্টার। এখানে আপনি টাইটেলে এই অতিরিক্ত কিছু ক্যারেক্টার ব্যবহার করার সুবিধা নিতে পারেন।

Schema Markup Data ব্যবহার করুনঃ

মোবাইল র‍্যাংকের প্রথম দিকের অনেক সাইটকে সাধারণত কার্ড আকারে দেখানো হয়। এটা CTR বৃদ্ধিতে অনেক সহায়ক। যদি আপনার সাইটে Schema Markup ব্যাবহার করেন, তাহলে আপনার সাইটটিকেও কার্ড আকারে দেখানো হতে পারেন।

এছাড়াও আপনারা এসইও এক্সপার্ট নীল প্যাটেল এর এই ভিডিও টি দেখতে পারেন। ২ বছরের পুরনো হলেও এটি এখনো অনেকটাই প্রাসংগিক-

আজ এ পর্যন্তই। যদি আরো কোন টিপস পাই সেটাকে এখানে পরবর্তীতে যোগ করবো ইনশাআল্লাহ। আপনাদের মূল্যবান মতামত কমেন্টে জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *